Logo
Notice :
Welcome To Our Website...
বুট তুলে রাখতে না রাখতেই কোচ?

বুট তুলে রাখতে না রাখতেই কোচ?

নিউজ ডেক্স // বুটজোড়া তুলে রেখেছেন ছয় মাসও হয়নি। এর মধ্যেই ম্যানেজার হওয়ার দিকে বহুদূর এগিয়ে গেছেন সাবেক ইতালি মিডফিল্ডার ড্যানিয়েলে ডি রসি২০০৬ বিশ্বকাপে ইতালির যে দলটা বিশ্বসেরা হয়েছিল। সে দলের অনেকেই এখন ম্যানেজার। জেনারো গাত্তুসোর কথাই ধরুন। এসি মিলানের সাবেক কোচ এখন দায়িত্বে আছেন নাপোলির। জুভেন্টাসকে হারিয়ে দুদিন আগে কোপা ইতালিয়াও জিতেছেন। 


আরেক সদস্য ফিলিপ্পো ইনজাঘিও ছিলেন মিলানের দায়িত্বে, এখন আছেন বেনেভেন্তোর ম্যানেজার হিসেবে। ফ্যাবিও ক্যানাভারো আবার গুয়াংজু এভারগ্রান্ডেতে আছেন। ব্রেসিয়ার কোচ ছিলেন সেমিফাইনালে গোল করা ফ্যাবিও গ্রোসো, আলবার্তো জিলার্দিনো তৃতীয় বিভাগের ক্লাব প্রো ভার্সেলির দায়িত্বে।
সে যুগের অন্যতম সেরা ডিফেন্ডার আলেসান্দ্রো নেস্তা আছেন দ্বিতীয় বিভাগের ক্লাব ফ্রসিসোনে তে। তাঁদেরই সাবেক সতীর্থ মিডফিল্ডার ড্যানিয়েলে ডি রসি-ই বা কেন বসে থাকবেন? ইতালিয়ান সংবাদমাধ্যমের খবর, ফিওরেন্তিনার কোচ হতে চলেছেন রসি।

ক্যারিয়ারে মাত্র দুটি ক্লাবের হয়ে খেলেছেন ডি রসি। ইতালিতে রোমা, আর্জেন্টিনায় বোকা জুনিয়র্স। বোকায় যোগ দেন ক্যারিয়ারের শেষপ্রান্তে, রোমার কাছ থেকে যোগ্য সম্মান না পেয়ে। রোমায় ‘ইল কাপিতানো ফিউচারো’ বা ‘ভবিষ্যতের অধিনায়ক’ মানা হত তাঁকে। ফ্রান্সেসকো টট্টি চলে যাওয়ার পর অধিনায়কও হয়েছিলেন। কিন্তু লিগ কখনও জেতেননি প্রিয় ক্লাবের হয়ে। সে আফসোস আবার মিটিয়ে দিয়েছে বোকা জুনিয়র্স। ক্যারিয়ারে বোকার হয়ে এক মৌসুমেই লিগ জিতেছেন। ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে ফুটবল থেকে অবসর নিয়েছিলেন গত জানুয়ারিতে।

কিন্তু খেলার মাঠে ‘যুদ্ধ’ করা যার রক্তে, তিনি কি সহজেই ময়দান ছেড়ে বেশি দূরে থাকতে পারেন? ডি রসিও পারছেন না। গত জানুয়ারিতে অবসর নিলেও ফিরছেন তিনি। এবার ডাগ আউটে, ফিওরেন্তিনা ম্যানেজার হিসেবে চাচ্ছে তাঁকে।

ইতালির সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, আগামী মৌসুম থেকেই ফিওরেন্তিনার কোচ হতে পারেন সাবেক এই তারকা। কোচ হওয়ার সাধ ডি রসির বহুদিনের, সে ইচ্ছেটা বাস্তবায়ন করার জন্য উঠেপড়ে লেগেছে গ্যাব্রিয়েল বাতিস্তুতা ও রুই কস্তার সাবেক এই ক্লাব।

ফিওরেন্তিনার দায়িত্বে এখন আছেন জিউসেপ্পে ইয়াচিনি। তাঁর অধীনে পয়েন্ট তালিকায় ১৪তম ‘লা ভিওলা’রা। অবনমন থেকে মাত্র ৯ পয়েন্ট দূরে। ইয়াচিনির আগেও যে অবস্থা বিশেষ ভালো ছিল, তা কিন্তু নয়। সাবেক কোচ ভিনসেঞ্জো মন্তেয়ার অধীনে ১৫ নম্বরে ছিল তাঁরা। ডি রসিকে নিয়োগ দিয়ে এই হতোদ্যম অবস্থা কাটাতে চায় ফ্লোরেন্সের দলটি।


তবে ফিওরেন্টিনার কোচ হওয়ার ক্ষেত্রে ডি রসির সবচেয়ে বড় বাধা, এখনও কোনো মূল দল কোচিং করানোর লাইসেন্স তাঁর নেই। প্রয়োজনীয় অনুমতিপত্র যোগাড় না হওয়া পর্যন্ত ডি রসি কীভাবে ফিওরেন্তিনার দায়িত্ব নিতে পারেন, সে সন্দেহ তাই থেকেই যাচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *