Logo
Notice :
Welcome To Our Website...
উজিরপুরে ফুটবল খেলায় দন্দ্বে জের ধরে কিশোর গ্যাং এর হামলা, ব্যাবসায়ী আহত

উজিরপুরে ফুটবল খেলায় দন্দ্বে জের ধরে কিশোর গ্যাং এর হামলা, ব্যাবসায়ী আহত

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক // বরিশালের উজিরপুর উপজেলার বামরাইল ইউনিয়নের হস্তিশুন্ড গ্রামের ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে দন্দের জের ধরে স্থানীয় বখাটে কিশোর গ্যাং এর সদস্যদের হাতে এক ব্যাবসায়ী হামলা’র শিকার হয়ে বরিশাল শের-এ-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মুমূর্ষু অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

স্থানীয় ও আহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়,কিছুদিন পূর্বে হস্তিশুন্ড সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে স্থানীয় কিশোররা দুগ্রুপে ভাগ হয়ে ফুটবল খেলার আয়োজন করে।খেলা চলাকালীন দুইগ্রুপ হাতাহাতিতে লিপ্ত হন।তাৎক্ষণিকভাবে স্থানীয় ব্যাবসায়ী রফিকুল ইসলাম উভয় পক্ষকে চড়থাপ্পড় দিয়ে ঘটনা মিটিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেন এবং খেলা বন্ধ করে দেন।

ঐ ঘটনার জের ধরে গত দুই আগষ্ট রবিবার সন্ধ্যায় হস্তিশুন্ড সিনিয়র ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার সামনের রাস্তায় স্থানীয় ইউসুফ বয়াতির সাথে ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম ঈদগাহ মার্কেট উদ্দেশ্যে আসার পথীমধ্য গতীরোধ করে স্থানীয় বখাটে মাদকসেবি কিশোর গ্যাংএর সদস্যঃ
বাচ্চু মৃধার ছেলে আবির হোসেন মৃধা(২০),রশিদ সরদারে ছেলে মামুন সরদার(২১),শাহ আলম সরদারের ছেলে এনামুল সরদার(২০),জামাল বেপারির ছেলে সাকিব বেপারি(২০),মিজান বয়াতির ছেলে মিরাজ বয়াতি(২০), মৃত রসিদ বয়াতির ছেলে সজিব বয়াতি সহ অজ্ঞাত আরো ১০-১২ জন কিশোর গ্যাং এর সদস্যরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করে এবং সঙ্গে থাকা ২০ হাজার টাকা ও মোবাইল ছিনিয়ে নেয়। আহতের আত্মচিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে কিশোর গ্যাং এর সদস্যরা পালিয়ে যায়।

আহতকে উদ্ধার করে প্রথমে উজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্যে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরন করেন। বর্তমানে তিনি শেবাচিম এর ৩য় তলায় মেডিসিন বিভাগের দুই নং ওয়ার্ডের ৩৫ নং বেডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। দ্বায়িত্ব প্রাপ্ত চিকিৎসক জানান, মাথায় গুরুতর আঘাত রয়েছে, তার সিটিস্ক্যান করা হয়েছে। রিপোর্ট আসার পরে বোঝা যাবে তবে, বর্তমানে তিনি শংকামুক্ত নয়।

আহত রফিকুল ইসলামের ছেলে শাকিল ব্যাপারী জানান, তার বাবার অবস্থা আশংকাজনক, এ বিষয়ে আইনি পদক্ষেপ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

ঘটনাকে অন্যখাতে প্রবাহিত করতে অভিযুক্তরা সাংবাদিক ভাইদের ভুল তথ্য দিয়ে বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টালে মিথ্যে এবং ভিত্তিহীন সংবাদ প্রচার করান।

এবিষয়ে উজিরপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ জিয়াউল আহসান জানান, অভিযোগ পাইনি তবে, অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *