Logo
Notice :
Welcome To Our Website...
বাইডেনের মন্ত্রিসভায় গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকছেন যারা

বাইডেনের মন্ত্রিসভায় গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকছেন যারা

বাংলাদেশ ক্রাইম // নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আগামী ২০ জানুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন। দায়িত্বগ্রহণের আগে তার মন্ত্রিসভা ও জাতীয় নিরাপত্তা দলে কারা থাকছেন তার একটি তালিকা সোমবার রাতে প্রকাশ করা হয়েছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রীসহ ৬টি গুরুত্বপূর্ণ পদে বাইডেন মনোনয়ন ঘোষণা করেছেন।

মার্কিন সংবাদ মাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘জো বাইডেন বলেন, সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জগুলি মোকাবিলা করতে এবং আমাদের সুরক্ষা, সমৃদ্ধি এবং মূল্যবোধকে এগিয়ে নিতে একটি টিম প্রস্তুত করা দরকার।’ তবে বাইডেন বিভিন্ন দায়িত্বে যাদের মনোয়ন দিয়েছেন তাদের কয়েকজনকে ওই পদে নিশ্চিত করতে মার্কিন সিনেটেরও অনুমোদন লাগবে।

অ্যান্টনি ব্লিনকেন

মন্ত্রিসভায় পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পেতে যাচ্ছেন অভিজ্ঞ কূটনীতিক অ্যান্টনি ব্লিনকেন। ৫৮ বছর বয়সী ব্লিনকেন মূলত ভূ-রাজনীতিতে যুক্তরাষ্ট্রের আধিপত্য বাড়ানোর বিষয়টিকে প্রাধান্য দেবেন। এছাড়া চীনকে মোকাবেলায় যুক্তরাষ্ট্রের মিত্রদের সঙ্গে আরও শক্তিশালী সম্পর্ক গড়বেন।

অ্যান্টনি ব্লিনকেন এর আগে ডেপুটি সেক্রেটারি অব স্টেট এবং ডেপুটি ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইজার ছিলেন। ওই সময় জো বাইডেন ভাইস-প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বাইডেনের পররাষ্ট্র নীতি ও পশ্চিমা দেশগুলোর সঙ্গে মিত্রতার নীতি বাস্তবায়ন করবেন।

জন কেরি

জো বাইডেনের মন্ত্রিসভায় জলবায়ু পরিবর্তনবিষয়ক বিশেষ দূত হচ্ছেন সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরি। বাইডেন দায়িত্ব গ্রহণের পর তিনি এ দায়িত্ব পালন করবেন। বিবিসিরি প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৬ সালে প্যারিস জলবায়ু চুক্তি সইয়ে মুখ্য ভূমিকা ছিল জন কেরির। ২০১৯ সালে, জলবায়ু পরিবর্তন কর্মসূচি এবং কার্বন নিঃসরণ কমাতে বিশ্ব নেতাদের নিয়ে একটি জোট চালু করেন যা ‘ওয়ার্ল্ড ওয়ার জিরো’ নামে পরিচিত।

গতকাল তার নতুন ভূমিকার সংবাদের পর তিনি টুইট বার্তায় জানান, শিগগিরই যুক্তরাষ্ট্রে এমন একটি সরকার থাকবে যা জলবায়ু সংকটকে জরুরিভাবে জাতীয় নিরাপত্তার হুমকির মতো মনে করবে এবং ব্যবস্থা নেবে।’

জো বাইডেনের টিম জানিয়েছে, জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে জন কেরি লড়াই চালিয়ে যাবেন। ২০১৬ সালে আমেরিকার পক্ষে প্যারিস জলবায়ু চুক্তিতে স্বাক্ষর করেছেন কেরি। এই চুক্তি দেশগুলিকে বৈশ্বিক তাপমাত্রার বৃদ্ধি সীমাবদ্ধ করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। কিন্তু ট্রাম্পের নেতৃত্বে প্রথম দেশ হিসাবে এ  চুক্তি থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে সরে এসেছে যুক্তরাষ্ট্র।  তবে জো বাইডেন বলেছেন, তিনি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব এই চুক্তিতে পুনরায় যোগদান করবেন।

এভ্রিল হেইনস

মার্কিন জাতীয় গোয়েন্দা বিভাগের প্রথম মহিলা পরিচালক হিসাবে এভ্রিল হেইনসকে মনোনীত করেছেন নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট। মিসেস হেইনস সিআইএর প্রাক্তন ডেপুটি ডিরেক্টর এবং ডেপুটি ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইজার।

আলেজান্দ্রো মায়োরকাস

আলেজান্দ্রো মায়োরকাস প্রথম লাতিন হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের সেক্রেটারি অব হোমল্যান্ড সিকিউরিটি পদে মনোনীত হয়েছেন। তিনি এর আগে বারাক ওবামার সময় ডেপুটি হোমল্যান্ড সিকিউরিটির দায়িত্ব পালন করেন।

জ্যাক সুলিভান

হোয়াইট হাউস ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইজার হিসেবে বাইডেন জ্যাক সুলিভানকে মনোয়ন দিয়েছেন। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার দ্বিতীয় জো বাইডেনের ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইজারের দায়িত্ব পালন করেন।

লিন্ডা টমাস-গ্রিনফিল্ড

দীর্ঘ সময় কূটনৈতিক দায়িত্ব পালন করা লিন্ডা টমাস-গ্রিনফিল্ডকে জাতিসংঘে মার্কিন রাষ্ট্রদূত হিসেবে মনোয়ন দেওয়া হয়েছে। তিনি প্রেসিডেন্ট ওবামার অধীনে ২০১৩ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত আফ্রিকা বিষয়ক অ্যাসিসটেন্ট সেক্রেটারি অব স্টেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

Print Friendly, PDF & Email

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *